জঙ্গলমহলের রাজনীতি শেষপর্যন্ত জায়গা করে নিল বাংলা ওয়েব সিরিজের জগতে।

“এই দুনিয়ায় নিরীহ কেউ নয়, সবাই কোনো না কোনো পক্ষে লড়ছে”। কেউ লড়ছে জীবনযুদ্ধে কোনোরকমে টিকে থাকার জন্য, আবার কেউ লড়ছে ক্ষমতা ও নিয়ন্ত্রণের অধিকার লাভের জন্য। বঞ্চনা, স্বার্থ, লোভ, লাভ, বৈষম্য আর রাজনীতির এই লড়াইয়ের গল্প বলবে কমলেশ্বর মুখার্জি পরিচালিত নতুন ওয়েব সিরিজ রক্তপলাশ। জঙ্গলমহলের প্রেক্ষাপটে তৈরি সিরিজটি মে মাসে মুক্তি পাচ্ছে বাংলা ওটিটি প্ল্যাটফর্ম ক্লিক-এ।

নাগরিকের পক্ষ থেকে আবেদন:

 প্রিয় পাঠক,
      আপনাদের সাহায্য আমাদের বিশেষভাবে প্রয়োজন। নাগরিক ডট নেটের সমস্ত লেখা নিয়মিত পড়তে আমাদের গ্রাহক হোন।
~ ধন্যবাদান্তে টিম নাগরিক।

একাধারে সিরিজের লেখক, পরিচালক এবং অভিনেতা কমলেশ্বর বললেন, বর্তমান সময়ে রাজনৈতিক চেতনা বৃদ্ধির জন্য এই ধরনের রাজনৈতিক ছবি হওয়া প্রয়োজন। সম্প্রতি রক্তপলাশ সিরিজটির টিজার প্রকাশিত হয়েছে। সেই অনুষ্ঠানে পরিচালক আলাদা করে ধন্যবাদ জানিয়েছেন ক্লিক কর্তৃপক্ষকে, কারণ তাঁর মতে, এরকম গল্প নিয়ে কাজ করার “সাহস” অনেকে করেন না। পরিচালকের এই মন্তব্য থেকে আমরা একটি জিনিস অনুমান করতে পারি। হয় রক্তপলাশ বাণিজ্যিক দিক থেকে লাভবান না-ও হতে পারে জেনেও ক্লিক ঝুঁকি নিয়েছে, নয়ত সিরিজের রাজনৈতিক বক্তব্য এতটাই স্পষ্ট, যে সমস্যা দেখা দিতে পারে। ক্লিক সেই ঝুঁকিটি নিয়েছে।

ডার্ক এনার্জির প্রযোজনায় কমলেশ্বর ফরাসি সাহিত্যিক গি দ্য মপাসাঁর একটি ছোটগল্প অবলম্বনে এই রহস্যে মোড়া চিত্রনাট্য রচনা করেছেন। শুধু রাজনীতি নয়, এখানে উচ্চবিত্ত শহুরে ভদ্রতার মুখোশের আড়ালে লুকিয়ে থাকা স্বার্থান্ধ মানুষের কথাও রয়েছে বলে পরিচালক জানিয়েছেন। টিজারে এক ঝলক দেখে যা বোঝা যাচ্ছে, তাতে গল্পের কেন্দ্রে রয়েছে জঙ্গলমহলের একটি রিসর্টে বেড়াতে আসা কয়েকটি চরিত্র। রাত্রে শুরু হয় আড্ডা, সঙ্গে মানুষ চেনার খেলা। আর খেলার ছলে উন্মুক্ত হতে থাকে নিষ্পাপ মুখগুলির ভিতরের পাপ। তারপর হঠাৎ গল্পের মোড় ঘুরে যায়। আধাসামরিক বাহিনী আর উগ্রপন্থীদের সংঘাতের মাঝে পড়ে পণবন্দী হয়ে যায় এই চরিত্রগুলো, শুরু হয় প্রাণে বাঁচার লড়াই।

সিরিজে কেন্দ্রীয় দুটি চরিত্রে আছেন দেবদূত ঘোষ ও অনন্যা সেনগুপ্ত। তাঁদের সন্তানের চরিত্রে অভিনয় করেছেন বেবি তামান্না। এছাড়াও আছেন উৎসব মুখোপাধ্যায়, রোজা পারমিতা দে, অসীম রায়চৌধুরী, মৌমিতা পন্ডিত। অন্যান্য চরিত্রে থাকছেন শুভজিৎ কর, দীপঙ্কর, মৌসুমি দালাল, কোয়েল মিত্র, সুব্রত দাসগুপ্ত। একটি বিশেষ চরিত্রে কমলেশ্বর নিজেও থাকবেন। টিজারে শিলাজিৎকে দেখা গেলেও তিনি কোন চরিত্রে আছেন পরিচালক এবং অভিনেতা সম্ভবত কৌতূহল জিইয়ে রাখতে তা ভেঙে বলেননি।

সিরিজের শুটিং হয়েছে ঝাড়গ্রামে। টিজারের শুরুতে ভেসে আসা আবহসংগীতে শিবাশিস বন্দ্যোপাধ্যায় ব্যবহার করেছেন সেই অঞ্চলের লোকসংগীত। ঝাড়গ্রামের লালমাটি, জঙ্গল আর পলাশের সৌন্দর্যের আভাস টুবানের সিনেমাটোগ্রাফিতে।

আরো পড়ুন

ভাল গল্পের অভাবে ধুঁকছে বাংলা ওটিটি কনটেন্ট

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.